ঢাকা বৃহঃস্পতিবার, ২১শে ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ৯ই ফাল্গুন ১৪২৫


বইমেলায় রনি রেজার গল্পগ্রন্থ ‘এলিয়েনের সঙ্গে আড্ডা’


৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ ১৭:৫৯

আপডেট:
২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ ০২:১৭

বইমেলায় রনি রেজার গল্পগ্রন্থ ‘এলিয়েনের সঙ্গে আড্ডা’

তরুণ কথাশিল্পী রনি রেজার প্রথম গল্পগ্রন্থ পাওয়া যাবে ২০১৯-এর বইমেলায়। ‘এলিয়েনের সঙ্গে আড্ডা’ নামে বইটি পাওয়া যাচ্ছে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে বেহুলাবাংলার ১২৩, ১২৪ নং স্টলে এবং লিটলম্যাগ চত্ত্বওে বেহুলাবাংলা, টাপুর-টুপুর ও মাদুলি’র স্টলে। বইটির মূল্য ধরা হয়েছে ১৭৫ টাকা।

বেবহুলাবাংলা প্রকাশন থেকে প্রকাশিত বইটি সাজানো হয়েছে ১০টি গল্প দিয়ে। যার প্রতিটি গল্পেই রয়েছে ভিন্ন ভিন্ন স্বাদ ও বাস্তবতা। অ্যাবাটর সিনেমার একটি চরিত্র অবলম্বনে এর প্রচ্ছদ করেছেন স্বরজিৎ।
বইটির ফ্ল্যাপে ভারতীয় কথাসাহিত্যিক অমিত গোস্বামী লিখেছেন, ‘এলিয়েনের সঙ্গে আড্ডা’ নামেই কেমন রহস্য ছড়িয়ে আছে। হ্যাঁ, রহস্যময় ভঙ্গিতেই চারপাশের কথাগুলো তুলে ধরেছেন সাবলীলভাবে। পাঠক যখন তার বর্ণনা পড়বে সমস্ত দৃশ্যই চেনা লাগবে। যেন কল্পনার ডালিতে সাজিয়েছেন আমার কথাগুলোই। এখানেই লেখকের মুন্সিয়ানা।

এখানেই তিনি জীবনের শ্বাশ্বত সত্যকে উদঘাটিত করেছেন। অনন্তকে ছুঁয়ে থাকা জলোচ্ছ্বাসের কাছে নিজেকে নিবেদনের মধ্যে থাকে আনন্দ। সীমাহীন বিপুলের কাছে মানুষ তো ভিখিরি। এই ভিখিরিপনা আসলে পূর্ণতারই দ্যোতক। নিজেকে দান করে পূর্ণ হয়ে ওঠার প্রয়াস।

মাত্র দশটি গল্পে সাজানো এই গল্প সংকলন। গল্পগুলির পাঠের সঙ্গে সঙ্গে পাঠক সহজেই লেখকের অন্তর্জগতের ক্রমাগত ভাঙন অনুভব করবেন। এই ভাঙন অন্ধকারের নয়। এই বিচ্ছিন্নতা ব্যাপ্তির উল্লাস। নিজের ভেতর থাকা ব্যাপ্তিবোধের ব্যূহ ভেঙে লেখক এখানে গতিমান জীবনের আলেখ্য লিখেছেন। বইটি সবাইকে অন্যরকম ভালোলাগা উপহার দেবে।

বইটি সম্পর্কে রনি রেজা বলেন, দীর্ঘদিন ধরে জাতীয় পত্রিকায় লেখালেখি করলেও বই প্রকাশ হচ্ছে এটিই প্রথম। প্রথমের প্রতি সবারই আলাদা মায়া থাকে। সেই মায়া থেকেই সর্বোচ্চটা দেয়ার চেষ্টা করেছি। সাহিত্য শুধু পাঠ্য বিষয় নয়, এটি সমাজ বিনির্মাণেও ভূমিকা রাখতে পারে। বাস্তবিক জীবনের এমন কিছু ঘটনা থাকে যা কল্পনাকেও হার মানায়। আবার কল্পলোকেরও অনেক বিষয় আমাদের দৈন্দিন জীবনে লেপ্টে থাকে; আমরা হয়তো বুঝতেই পারি না। এসব বিষয় নিয়েই একটু ভিন্নভাবে কল্পনার প্রলেপ দিয়ে উপস্থাপনের চেষ্টা করা হয়েছে ‘এলিয়েনের সঙ্গে আড্ডা’ বইটিতে। পাঠক প্রতিটি গল্পেই ভিন্নরকম কিছু পারবে বলে আশা করছি।

নতুনসময়/আইএ