ঢাকা শনিবার, ২৬শে সেপ্টেম্বর ২০২০, ১২ই আশ্বিন ১৪২৭


বার্সাকে ৮ গোল দিয়ে বায়ার্নের ১০ রেকর্ড


১৫ আগস্ট ২০২০ ১৭:১৯

আপডেট:
২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০ ১৩:৩২

সংগৃহীত

এমন বার্সেলোনাকে কবে কখন কোথায় কিভাবে দেখেছে কেউ বলতে পারবে না। দলটির অভ্যন্তরে যে কি চলছে, সেটা চোখে আঙ্গুল দিয়ে দেখিয়ে দিলো তারা। অগোছালো মেসিদের নিয়ে স্রেফ ছেলেখেলা করলো বায়ার্ন মিউনিখ।

পর্তুগালের রাজধানী লিসবনে অনুষ্ঠিত তৃতীয় কোয়ার্টার ফাইনালে শুক্রবার (১৪ আগস্ট) রাতে মেসিদের জালে গুনে গুনে আটবার বল জড়ালো বায়ার্ন। নিজেদের জালে নিজেরাই জড়িয়েছে একবার।

রেকর্ডময় ম্যাচটি বলতে গেলে ঐতিহাসিক এক ম্যাচের মর্যাদা পেয়ে গেছে। জার্মান জায়ান্টদের ৮-২ গোলে জেতা ম্যাচটিতে হয়েছে অসংখ্য রেকর্ড।

একনজরে দেখে নেয়া যাক কী কী রেকর্ড হয়েছে পর্তুগালের লিসবনে অনুষ্ঠিত এই ম্যাচে:

১. চ্যাম্পিয়ন্স লিগ ইতিহাসে নকআউট পর্বে এটাই সবচেয়ে বড় ব্যবধানে জয়।

২. এই নিয়ে পাঁচবার প্রতিপক্ষকে আট গোল দিলো বায়ার্ন।

৩. চ্যাম্পিয়ন্স লিগের যেকোন পর্বে এটাই বায়ার্ন মিউনিখের সবচেয়ে বড় জয়।

৪. চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ইতিহাসে দায়িত্ব নেয়ার পর ফাবিও কাপেলো (১৯৯২-৯৩) এবং লুইস ফার্নান্দেসের (১৯৯৪-৯৫) পর তৃতীয় কোচ হিসেবে শুরুর ছয় ম্যাচেই জিতলেন বায়ার্নের কোচ হান্সি ফ্লিক।

৫. ১৯৪৬ সালের পর এই প্রথম এক ম্যাচে এতে বেশি গোল হজম করলো বার্সেলোনা। ৭৪ বছর আগে কোপা দেল রে’র শেষ ষোলোয় সেভিয়ার কাছে ৮-০ গোলে হেরেছিল কাতালানরা।

৬. এ নিয়ে বায়ার্নের বিপক্ষে চ্যাম্পিয়ন্স লিগে ছয়টি ম্যাচে হারলো বার্সেলোনা যা সর্বোচ্চ। বায়ার্ন ছাড়া অন্য কোনো দলের বিপক্ষে বার্সেলোনার সর্বোচ্চ হার চার ম্যাচ।

৭. চ্যাম্পিয়ন্স লিগে বার্সেলোনার বিপক্ষে পাঁচ ম্যাচে ৫টি গোল করে এন্ড্রি শেভেচেঙ্কোকে স্পর্শ করলেন থমাস মুলার। তিনিও বার্সার বিপক্ষে চ্যাম্পিয়ন্স লিগে সর্বোচ্চ ৫টি গোল করেছেন।

৮. ইতিহাসের পঞ্চম খেলোয়াড় হিসেবে চ্যাম্পিয়ন্স লিগে টানা আট ম্যাচে গোল করার কীর্তি গড়লেন বায়ার্নের রবার্ট লেভানদোভস্কি।

৯. এই মৌসুমে সব ধরণের প্রতিযোগিতা মিলিয়ে এটি বার্সেলোনার নবম হার। ২০০৭-০৮ মৌসুমের পর যা সর্বোচ্চ। সেই মৌসুমে ১১ ম্যাচ হেরেছিলো বার্সা।

১০. চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ইতিহাসে এবারই প্রথম শুরুর ৪৫ মিনিটে চার গোল হজম করেছে বার্সেলোনা।