ঢাকা সোমবার, ২২শে অক্টোবর ২০১৮, ৭ই কার্তিক ১৪২৫


দেশের স্বার্থেই ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন


২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮ ২২:৪৯

আপডেট:
২২ অক্টোবর ২০১৮ ০২:৩২

দেশের স্বার্থেই ডিজিটাল সিকিউরিটি আইন প্রণয়ন হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, কেউ কেউ ব্যক্তি স্বার্থ থেকে মতামত দিয়ে এ আইনের বিরোধিতা করছেন। সমগ্র দেশ ও সমাজের স্বার্থে এটি যে গুরুত্বপূর্ণ তা তারা ভাবেননি।

বৃহস্পতিবার (২০ সেপ্টেম্বর) জাতীয় সংসদের ২২তম অধিবেশনের সমাপনী বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি।

শেখ হাসিনা বলেন, কয়েকজন বিশিষ্ট ব্যক্তি, সাংবাদিক, সম্পাদক ডিজিটাল আইনের বিরোধিতা করছেন। তারা বলছেন, সাংবাদিকদের কণ্ঠরোধ হয়ে যাবে। কিন্তু কণ্ঠ তো রোধ হয়নি। রোধ হলে তো মতামত দিতে পারতেন না।

এ সময় প্রধানমন্ত্রী বলেন, দেশে একটামাত্র টেলিভিশন ছিল। টিভি, রেডিও বেসরকারি খাতে দিতে কোনো সরকার সাহস করেছিল? আমরাই দিয়েছি। সারারাত টকশো হচ্ছে, কেউ তো বাধা দিচ্ছে না।

তিনি বলেন, সাংবাদিকতা হবে গঠনমূলক। বিভ্রান্ত, সহিংসতা ছড়িয়ে দেবে না। ব্যাপকহারে সংবাদপত্রের অনুমোদন দিয়েছি। এত পত্রিকার অনুমোদন পৃথিবীর কোন দেশে আছে?

‘‌অনেক চড়াই-উৎরাই করে আমরা গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করেছি। গণতন্ত্র আছে বলেই দেশ এগিয়ে যাচ্ছে। জাতির পিতাকে হত্যার মধ্য দিয়ে দেশের সব আশাবাদকে ধ্বংস করে দেয়া হয়েছিল। ২১ বছর পর আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসার পর দেশের মানুষ আবার সুশাসন পেতে শুরু করলো’,- বলেন শেখ হাসিনা।

এসএ