ঢাকা সোমবার, ২২শে অক্টোবর ২০১৮, ৭ই কার্তিক ১৪২৫


ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে আপত্তিকর অবস্থায় তরুণ-তরুণী


২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮ ২২:৫০

আপডেট:
২২ অক্টোবর ২০১৮ ০৩:৫৬

ইবিতে আপত্তিকর অবস্থায় তরুণ-তরুণীকে আটক করে ছাত্রলীগ নেতাকর্মীরা মারধর করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। বৃহস্পতিবার (২০ সেপ্টেম্বর) বিকাল সাড়ে ৫টার দিকে ক্যাম্পাসের পেয়ারা তলায় এ ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বৃহস্পতিবার বিকাল ইসলামি বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাসের পেয়ারা তলায় বহিরাগত দুজন তরুণ-তরুণীকে আটক করে ছাত্রলীগ কর্মীরা। পরে তাদের মারধর করে ছাত্রলীগ কর্মী ও আরবি ভাষা ও সাহিত্য বিভাগের জুবায়ের, রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের নুরুজ্জামান সাগর ও ইংরেজি বিভাগের রাব্বিসহ বেশ কয়েকজন। মারধরের পর জসিমের কাছ থেকে পাঁচশ টাকা নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের আনসারদের হাতে তুলে দেন তারা। আনসার সদস্যরা আটকদের কাছে মুচলেকা নেয় এবং তিন হাজার টাকার বিনিময়ে তাদের ছেড়ে দেয়।

সূত্র জানায়, ওই ছেলে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটকের সামনে বিকাশ এজেন্টের দোকানে গিয়ে টাকা দিতে চায়। টাকা দেয়ার সময় লোকজনের উপস্থিতি থাকায় চুক্তির টাকা নিতে ব্যর্থ হয় আনসার আসলাম। পরে তাদের এলাকার লোকজন এসে নিয়ে যায়। এ বিষয়ে আনসার সদস্য আসলামকে এ বিষয়ে জিজ্ঞেস করা হলে তিনি কিছুই জানেন না বলে জানান।

বিশ্ববিদ্যালয়ের সিকিউরিটি অফিসার রুপম জানান, আনসারদের সাথে টাকা লেনদেনের কোন চুক্তি হয়নি। চুক্তি হয়েছে ছাত্রলীগের সাথে।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. মাহবুবর রহমান বলেন, বিষয়টি আমি শুনেছি। সুনির্দিষ্ট তথ্য-প্রমাণাদি পেলে আনসারদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এমএ